আমাদের ওয়েবসাইট www.womeneye24.com আপডেটের কাজ চলছে। সাময়িক অসুবিধার জন্য আমরা দু:খিত
খেলাধুলাস্লাইড

বার্সাতে থাকছেনা জানিয়ে দিয়েছেন মেসি!

স্পোর্টস ডেস্ক : কদিন ধরেই জল্পনা-কল্পনা চলছে বার্সেলোনা ছাড়ছেন আর্জেন্টাইন সুপারস্টার লিওনেল মেসি। এবার সব জল্পনার অবসান ঘটিয়ে বার্সাকে মেসি নিজেই জানিয়ে দিয়েছেন তিনি আর থাকছেন না এই ক্লাবে।

টিওয়াইসি স্পোর্টসের বরাত দিয়ে বিষয়টি জানিয়েছে ফুটবলের বিশ্বস্ত সংবাদমাধ্যম গোল ডটকম। এতে বলা হয়, মেসি ফ্যাক্সের মাধ্যমে বার্সা কর্তৃপক্ষকে জানিয়ে দিয়েছেন ক্লাব ত্যাগ করার বিষয়টি।

বার্সার হয়ে নতুন নতুন রেকর্ড গড়েছেন মেসি। টানা ২০ বছর ধরে আছেন স্পেনের এই ক্লাবটিতে। ১৩ বছর বয়সে আর্জেন্টিনার নিউওয়েলস ওল্ড বয়েস ক্লাব থেকে বিনা ট্রান্সফার ফিতে যোগ দেন ন্যু ক্যাম্পে। ২০০২ সাল থেকে বার্সা যুবদলের হয়ে শুরু করেন বর্তমান বিশ্বের অন্যতম সেরা এই ফুটবলার।

বার্সেলোনা যুবদল থেকে ২০০৩ সালে যোগ দেন অনূর্ধ্ব ১৬ দলে। এরপর একে একে বার্সা অনূর্ধ্ব ১৯, বার্সা সি দল, বার্সা বি দলের হয়ে খেলা সম্পন্ন করে ২০০৫ সালে ১ জুলাই ডাক পান বার্সার মূল দলে। এরপর থেকেই দুপায়ের জাদুতে মুগ্ধ করে রেখেছিলেন পুরো বিশ্বকে।

মেসি বার্সেলনার হয়ে ৭৩১ ম্যাচ খেলে গোল করেছে ৬৩১টি। তার মধ্যে লা লিগায় ৪৮৫ ম্যাচে ৪৪৪ গোল, চ্যাম্পিয়ন্স লিগে ১৪৩ ম্যাচে ১১৫ গোল, কোপা দেল’রে তে ৭৫ ম্যাচে ৫৩ গোল, সুপার কোপায় ১৯ ম্যাচে ১৪ গোল, ক্লাব ওয়ার্ল্ড কাপে ৫ ম্যাচে ৫ গোল ও উয়েফা সুপার কাপে ৪ ম্যাচে ৩ গোল করেন।

গোলে সহায়তা করেছেন লা লিগায় ৪৮৫ ম্যাচে ২০১ গোল, চ্যাম্পিয়ন্স লিগে ১৪৩ ম্যাচে ৩৯, কোপা দেল’রে তে ৭৫ ম্যাচে ৩৬, সুপার কোপায় ১৯ ম্যাচে ৫, ক্লাব ওয়ার্ল্ড কাপে ৫ ম্যাচে ১ ও উয়েফা সুপার কাপে ৪ ম্যাচে ৩ গোলে সহায়তা করেন।

মেসি তার পুরো ক্যারিয়ারে বার্সার হয়ে ৫৯ হাজার ৩১৫ মিনিট মাঠে ছিলেন। তার মধ্যে সর্বোচ্চ ৩৯ হাজার ১২০ মিনিট খেলেছে লা লিগায়। সর্বনিম্ন ৪২০ মিনিট খেলেছেন উয়েফা সুপার কাপে। পুরো ক্যারিয়ারে হলুদ কার্ড দেখেছেন ৭৫টি। লাল কার্ড দেখেননি একটিও।

ফুটবল বিশ্বের এই মহাতারকা সর্বোচ্চ ৬ বার ফিফার বর্ষসেরেয়া খেলোয়াড় হন। ব্যালন ডি অর জেতেন ৬ বার। চারবার জেতেন চ্যাম্পিয়ন্স লিগ। ১০ বার স্প্যানিশ চ্যাম্পিয়নের ট্রফি ও ৬ বার স্প্যানিশ কাপ জেতেন এই সুপারস্টার।

আরও পড়ুন

Back to top button
Close
Close